রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১১:০১ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি....
“সরকারের দিক-নির্দেশনা মেনে চলি, করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ করি।” অনলাইন নিউজ পোর্টাল “আজকের দিগন্ত ডট কম” এর পক্ষ থেকে আপনাকে জানাচ্ছি স্বাগতম , সর্বশেষ সংবাদ জানতে এখনই ভিজিট করুন “আজকের দিগন্ত ডট কম” (www.ajkerdiganta.com) । বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশনের জন্য পরিশ্রমী, মেধাবী এবং সাহসী প্রতিনিধি আবশ্যক, নিউজ ও সিভি পাঠানোর ঠিকানাঃ-- ajkerdiganta@gmail.com // “ধুমপান স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর, আসুন আমরা মাদক’কে না বলি”
সংবাদ শিরোনাম....
রাঙ্গুনিয়া পৌরসভায় এ্যাডভোকেট নুরুচ্ছফা তালুকদার পৌর অডিটোরিয়ামের উদ্বোধন নলডাঙ্গার আওয়ামীলীগের প্রবীন নেতা আহম্মদ আলীর মৃত্যুতে শিমুল এমপির শোক রাজাপুরে হোমিওপ্যাথিক চিকিৎসকদের সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত বন্দর সংযোগ সড়কের উন্নয়ন কাজ শুরু শ্রীপুরে ৪২ তম জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সপ্তাহ অনুষ্ঠিত সারাদেশে সাংবাদিক নির্যাতনের প্রতিবাদে বীরগঞ্জে মানব বন্ধন নলডাঙ্গার হালতি বিলে অবৈধ বানাজালের বেড়া অপসারণ শুরু করলেন ইউএনও গোদাগাড়ীতে বাটিক ও হ্যান্ড এমব্রয়ডারি প্রশিক্ষণ সমাপ্ত তিলোত্তমা নগরী গড়তে হলে মানসিকতায় পরিবর্তন আনতে হবে– মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক পীরগঞ্জে কৃষকলীগের আনন্দ র‌্যালী

আত্মসমর্পণ ও অস্ত্র জমা দিয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরলো ৩৪ জলদস্যু

আত্মসমর্পণ ও অস্ত্র জমা দিয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরলো ৩৪ জলদস্যু

 

 

 

অনলাইন ডেস্কঃ কিছুদিন পূর্বেও তারা ছিল সমাজের চোখে নিন্দিত ও ঘৃণিত। লোকজন তাদের দেখতো বাঁকা চোখে। কেউবা ভয়ের চোখে। তাদের স্ত্রী – সন্তানরাও ছিল সমাজে অপাঙতেয়। স্কুল কলেজে তাদের সন্তানদের সাথে মিশতে চাইতোনা কেউ। অনেকটা একঘরে হয়ে থাকতে হতো তাদেরকে। কারন তারা ছিল ডাকাত, জলদস্যু। বঙ্গোপসাগর এবং তৎসংলঘ্ন নদী ও সমুদ্রে মাছ ধরার নৌকা লুটতো তারা। মাছ ও জাল লুটের পাশাপাশি জেলেদের জিম্মি করে আদায় করতো মুক্তিপণ। চাহিদা মোতাবেক টাকা না পেলে নৌকার মাঝিদের ক্ষতিও করতো অনেক সময়। এমনই অনুভূতি ব্যক্ত করেছে আজ আত্মসমর্পণ করা একজন জলদস্যু।

সেরকম ১১টি বাহিনীর ৩৪ জন জলদস্যু নিজেদের ভুল বুঝতে পেরে অনুতপ্ত মনে ক্ষমা চেয়ে নিজেদের অস্ত্র ও গোলাবারুদ জমা দিয়ে বিনা শর্তে আজ আত্মসমর্পণ করে। র‌্যাব-৭ এর ব্যবস্থাপনায় এসব জলদস্যু আত্মসমর্পণ করে ফিরলো স্বাভাবিক জীবনে

চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজেলার বাঁশখালী আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে আয়োজিত আত্মসমর্পণ অনুষ্ঠানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা আসাদুজ্জামান খান এর নিকট অস্ত্র ও গোলাবারুদ জমা দিয়ে আজ এসব জলদস্যু আত্মসমর্পণ করে। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী তাদের অস্ত্র গ্রহণ করে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসায় অভিনন্দন জানান।

চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার জেলার বাঁশখালী চকরিয়া মহেশখালী কুতুবদিয়া ও পেকুয়া- এ ৫ উপজেলার এসব জলদস্যু আত্মসমর্পণকালে ৯০টি দেশি-বিদেশি অস্ত্র, ২ হাজার ৫৬টি গুলি ও কার্তুজ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর হাতে তুলে দেয়। তাদের জমা দেওয়া অস্ত্রের মধ্যে রয়েছে এলজি-৪১টি, থ্রি কোয়াটার এলজি ১৯টি, বিদেশী পিস্তল-১টি, রিভলবার-১টি, এসবিবিএল-৫টি, এসবিবিএল বন্দুক-১৬টি, ডিবিবিএল বন্দুক-১টি, ওয়ান শুটারগান-১টি, থ্রি কোয়াটার ওয়ান শুটারগান-১টি, এসবিবিএল ওয়ান শুটারগান-১টি, পাইপগান-১টি এবং এয়ারগান-২টি। এছাড়া গোলা ও কার্তুজের মধ্যে রয়েছে .১২ বোরের গুলি -৮৮৬ রাউন্ড ও .২২ বোর রাইফেলের গুলি-১১৭০ রাউন্ড। আজ অস্ত্র জমা দেওয়া বাহিনীগুলো হচ্ছে বাইশ্যা বাহিনী, খলিল বাহিনী, রমিজ বাহিনী, বাদশা বাহিনী, জিয়া বাহিনী, কালাবদা বাহিনী, ফুতুক বাহিনী, বাদল বাহিনী, কাদের বাহিনী ও নাছির বাহিনী।

অনুষ্ঠানে বক্তৃতাকালে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের উপকূলীয় অঞ্চলে কোনরকম ডাকাতি ও জলদস্যুতা সহ্য করা হবেনা। উপকূলীয় এলাকা নিরাপদ ও বসবাস উপযোগি রাখার স্বার্থে সব করা হবে। তিনি বলেন, র‌্যাবসহ বাংলাদেশের সকল আইন-শৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনী অত্যন্ত চৌকষ ও দক্ষ। সুন্দরবন বা গভীর সমুদ্র কোথাও জলদস্যুদের লুকিয়ে আত্মগোপন করে থাকার সুযোগ নেই। তাদেরকে আইনের আওতায় আসতেই হবে। কাজেই যারা ডাকাতি লুঠতরাজ ছেড়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসবে তাদেরকে পুনর্বাসনের জন্য প্রয়োজনীয় সাহায্য সহযোগিতা করা হবে। হত্যা ও ধর্ষণের মতো জগণ্য অপরাধের মামলা ছাড়া অন্যান্য মামলায় তাদেরকে যতটুকু সম্ভব ছাড় দেওয়া হবে। পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় তাঁর পক্ষ থেকে এককালীন আর্থিক অনুদান প্রদান ছাড়াও বিকল্প কর্মসংস্থানের সুযোগ করে দেওয়া হবে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ২০১৬ সাল থেকে আত্মসর্ম্পণের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। ক্রমাগত আত্মসমর্পণের পর খুলনা সুন্দরবন অঞ্চলে বর্তমানে জলদস্যু নেই বললে চলে। ২০১৮ সালে প্রধানমন্ত্রী সুন্দরবনকে জলদস্যু মুক্ত ঘোষণা করেছেন। আত্মসমর্পণকৃত সে অঞ্চলের জলদস্যুদের স্বাভাবিক কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা হয়েছে। তারা এখন সামাজিক জীবন যাপন করছে। সে ধারাবাহিকতায় র‌্যাব-৭, চট্টগ্রাম অঞ্চলের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় আজকের এ আত্মসমর্পণ। এসব জলদস্যুদের প্রধানমন্ত্রী এবং র‌্যাব এর পক্ষ থেকে এককালীন অনুদান দেওয়া হবে। এ সময় তিনি যারা এখনো আত্মসমর্পণ করেনি এমন জলদস্যু, ভুমিদস্যু ও ডাকাতদের আত্মসর্ম্পণ করে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসার আহ্বান জানান।

র‌্যাব-৭, চট্টগ্রাম অঞ্চলের পক্ষ থেকে জানানো হয়, আত্মসমর্পনকৃত এসব জলদস্যুদের স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে সম্ভাব্য সব সহযোগিতা করা হবে। হত্যা ও ধর্ষণ এর মতো জগণ্য অপরাধ ছাড়া অন্যান্য স্বাভাবিক মামলার ক্ষেত্রে তারা যেন সহজে ছাড় পায় তার ব্যবস্থা করা হবে। এসব আত্মসমর্পণের মধ্য দিয়ে কক্সবাজার চট্টগ্রাম নোয়াখালী ভোলা পটুয়াখালী বরিশাল বাগেরহাট ও খুলনা সুন্দরবন অঞ্চলের উপকূলীয় এলাকায় শান্তির সুবাতাস বইবে বলে র‌্যাব-৭ আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

অনুষ্ঠানে পূর্বে জিম্মি হওয়া একজন নৌকার মাঝি তার অনুভূতি প্রকাশ করতে গিয়ে বলেন, বঙ্গোপসাগর জলদস্যু মুক্ত হলে আমরা নিরাপদে মৎস্য আহরণ করতে পারবো। ফলে জেলে পল্লীতে কর্মসংস্থান ও আয়বৃদ্ধির পাশাপাশি বাজারে মাছের যোগান বৃদ্ধি পাবে। দামও কমবে। জলদস্যুদের পরিবারের একজন স্কুলছাত্রী আত্মসর্ম্পণে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে বলেন, এখন থেকে স্কুলে আমাকে আর কটুবাক্য শুনতে হবেনা।

র‌্যাব -৭ চট্টগ্রাম অঞ্চলের অধিনায়ক লেঃ কঃ মশিউর রহমান জুয়েল এর সভাপতিত্বে এতে অন্যান্যের মধ্যে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বিষয়ক সংসদীয় কমিটির সভাপতি শামসুল হক টুকু এমপি, মোস্তাফিজুর রহমান চৌধুরী এমপি, আশেক উল্লাহ রফিক এমপি, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের সিনিয়র সচিব মোস্তাফা কামাল উদ্দিন, আইজিপি ড. বেনজির আহমেদ, র‌্যাবের অতিরিক্ত মহাপরিচালক লেঃ কঃ তোফায়েল মোস্তফা সারোয়ার, চট্টগ্রামের পুলিশ সুপার এস এম রশিদুল হক, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) এজেডএম শরিফ হোসেন বক্তৃতা করেন।

এ অনুষ্ঠানের সাথে র‌্যাব-৬ ও র‌্যাব-৮ কর্তৃক খুলনা অঞ্চলে আয়োজিত আত্মসমর্পণের দ্বিতীয় বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠানের সাথে ভার্চুয়ালি সংযোগ স্থাপন করা হয়। ফলে এখানকার অনুষ্ঠান খুলনা অঞ্চলে এবং খুলনার অনুষ্ঠান এখানে প্রদর্শণ করা হয়।

Print Friendly, PDF & Email

খবরটি শেয়ার করুন....



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

অনুসন্ধান



বাংলাদেশ জাতীয় তথ্য বাতায়ন

করোনা ইনফো (কোভিড-১৯)

 

 

 

 

 

 

পাঁচ ওয়াক্ত নামাজের সময়সূচী

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৫:০৫ পূর্বাহ্ণ
  • ১১:৪৯ পূর্বাহ্ণ
  • ৩:৩৫ অপরাহ্ণ
  • ৫:১৪ অপরাহ্ণ
  • ৬:৩১ অপরাহ্ণ
  • ৬:২০ পূর্বাহ্ণ

ফটো গ্যালারি



জনপ্রিয় পুরাতন হিন্দি গান

জনপ্রিয় বাউল গান




ইউটিউব চ্যানেল

সর্বশেষ সংবাদ জানতে



আমরা জনতার সাথে......“আজকের দিগন্ত ডট কম”

© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত “আজকের দিগন্ত ডট কম”।  অনলাইন নিউজ পোর্টালটি  বাংলাদেশ তথ্য মন্ত্রনালয়ে জাতীয় নিবন্ধন প্রক্রিয়াধীন।

Design & Developed BY ThemesBazar.Com
Shares